জুড়ীত দুইপক্ষের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে মধ্যস্থতাকারী নিহত : আহত ১৫

জানুয়ারী ১, ২০১৯, ৯:৩২ অপরাহ্ণ এই সংবাদটি ৪৬৬ বার পঠিত

বড়লেখা প্রতিনিধি॥ হাকালুকি হাওরপাড়ে জমি নিয়ে বিরোধের জেরে মঙ্গলবার দুপুরে দুই পক্ষের সংঘর্ষ থামাতে গিয়ে কোদালের আঘাতে নিহত হয়েছেন মধ্যস্থতাকারী তাহের আলী (৫০)। তিনি জুড়ী উপজেলার জায়ফরনগর গ্রামের টিলাবাড়ির মৃত আকবর আলীর ছেলে। সংঘর্ষে উভয়পক্ষের অন্তত ১৫ ব্যক্তি আহত হয়েছেন। এদের ৫ জনকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে।

থানা পুলিশ ও প্রত্যক্ষদর্শী সুত্রে জানা গেছে, হাকালুকি হাওরের পশ্চিম পাড়ে গোবিন্দপুর গ্রামের ‘চেয়ারম্যানের জাওর’ নামক স্থানে কালিনগর গ্রামের আব্দুল গফুরের ছেলেদের সাথে  জায়ফর নগর গ্রামের ফাতির আলী গংদের জমি নিয়ে বিরোধ চলছিল। মঙ্গলবার দুপুরে জমির চাষাবাদকে কেন্দ্র করে দুইপক্ষের মধ্যে সংঘর্ষ বাঁধলে প্রতিপক্ষের হামলায় ফাতির আলি, লিয়াকত আলী, তুহিন মিয়া, সেবু মিয়া, খছরু মিয়া, সেবুল মিয়াসহ একপক্ষের ১০ ও অপরপক্ষের ৫ ব্যক্তিসহ ১৫ জন আহত হন। সংঘর্ষ থামাতে ও আহত ফাতির আলীকে উদ্ধার করতে গেলে প্রতিপক্ষের এক ব্যক্তির কোদালের আঘাতে তাহের আলী ঘটনাস্থলেই মারা যান। আহতদের ৫ জনের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাদেরকে সিলেট এমএজি ওসমানী মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অন্যরা স্থানীয়ভাবে চিকিৎসা নিচ্ছেন।

জুড়ী থানার ওসি জাহাঙ্গির হোসেন সরদার জানান, খবর পেয়ে পুলিশ নিহতের লাশ উদ্ধার করে ময়না তদন্তের জন্য মৌলভীবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে। এ ব্যাপারে নিহতের ভাই আব্দুল মোক্তাদির বাদি হয়ে মঙ্গলবার বিকেলে থানায় হত্যা মামলা করেছেন।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”