মৌলভীবাজার-১ আসন হুইপ শাহাব উদ্দিনের বদলেছে পেশা,  বেড়েছে নগদ টাকা ও ব্যাংক ব্যালেন্স

ডিসেম্বর ৮, ২০১৮, ১০:৪২ অপরাহ্ণ এই সংবাদটি ৬৩ বার পঠিত

 আব্দুর রব॥ একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনে মৌলভীবাজার-১ (বড়লেখা ও জুড়ী) আসনের আওয়ামী লীগ দলীয় প্রার্থী জাতীয় সংসদের হুইপ শাহাব উদ্দিন এমপির গত ৫ বছরে বদলেছে পেশা, বেড়েছে নগদ টাকা এবং নিজের ও স্ত্রীর ব্যাংক ব্যালেন্স। ২৮ অক্টোবর রিটার্নিং কর্মকর্তার কার্যালয়ে মনোনয়নপত্রের সঙ্গে জমা দেয়া হলফনামা ও নবম-দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের হলফনামা পর্যালোচনায় এসব তথ্য পাওয়া গেছে।

   একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের হলফনামা অনুযায়ী, হুইপ শাহাব উদ্দিনের পেশা ব্যবসা। শিক্ষাগত যোগ্যতা বি.এ পাশ। অতীত ও বর্তমানে তার নামে নেই কোনো মামলা, দেনা বা ঋণ। দশম সংসদ নির্বাচনের আগে পেশা ছিল কৃষি। আয়ের উৎস কৃষিখাতের আয় ৩৬ হাজার টাকা, ব্যাংকে গচ্ছিত ১ লাখ ৮৮ হাজার ৬৮৪ টাকা। একাদশ জাতীয় সংসদ নির্বাচনের হলফনামায় পেশা ব্যবসা উল্লেখ করলেও এ খাতে তার নেই কোন আয়। কৃষিখাতের আয় ৫০ হাজার টাকা, হাতে নগদ ২ লাখ টাকা, ব্যাংকে গচ্ছিত ২২ লাখ ৭১ হাজার ৯০০ টাকা, স্ত্রীর ব্যাংক ব্যালেন্স ৯৯ হাজার ৬০০ টাকা। ১০ বছর আগে নবম সংসদ নির্বাচনে হুইপ শাহাব উদ্দিন এমপির কৃষি খাতের আয় ছিল ১৮ হাজার টাকা, হাতে নগদ ১৫ হাজার টাকা, স্ত্রীর ব্যাংক হিসাব ছিল শূন্য।

  স্থাবর সম্পত্তির মধ্যে বর্তমানে আছে পৈত্রিক ও ক্রয়সূত্রে ১ লাখ টাকার ১২ বিঘা কৃষি জমি, ঢাকার উত্তরায় ৩২ লাখ ৩৯ হাজার ১০০ টাকা মূল্যের প্লট, ৭৪ লাখ টাকার টয়োটা ল্যান্ড ক্রোজার জীপ গাড়ী। তার (প্রার্থী) ওপর নির্ভরশীলদের আয় ৫ লাখ টাকা।

 দশম জাতীয় সংসদ নির্বাচনের আগে তার দেয়া প্রতিশ্রুতির মধ্যে জুড়ী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সের নির্মাণ কাজ, বড়লেখা উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সেকে ৩১ শয্যা থেকে ৫০ শয্যায় উন্নিতকরণ ও ১২০ কিলোমিটার গ্রামীণ রাস্তা পাকাকরণের কাজ সম্পুর্ণ বাস্তবায়ন এবং কুলাউড়া-শাহবাজপুর রেললাইন পুনঃনির্মাণ কাজ চলমান ও নির্বাচনী এলাকার বিভিন্ন গ্রামে প্রায় ৯৭ পার্সেন্ট বিদ্যুতায়নের কাজ সমাপ্ত করেছেন বলে হলফনামায় উল্লেখ করেন।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”