রাজনগরে জেএসসি পরীক্ষার প্রবেশ পত্রের ফি আদায়!

অক্টোবর ২৫, ২০১৭, ৬:৪৯ অপরাহ্ণ এই সংবাদটি ১৪০ বার পঠিত

স্টাফ রিপোর্টার॥ রাজনগর উপজেলার খলাগাও করিমপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে জেএসসি ২০১৭ সালের পরীক্ষার্থীদের কাছ থেকে কোচিং ও এডমিট কার্ডের ফি আদায় করা হচ্ছে বলে অভিযোগ করেছেন অভিভাবকরা। এডমিট কার্ড ও কোচিং ফি পরিশোধ না করায় শিক্ষার্থীদের অশ্লীল ভাষায় কথা বলছেন শিক্ষকরা। আর টাকা পরিশোধ না করলে স্কুল পরিবর্তনেরও কথাও বলছেন।
জানা যায়, খলাগাও করিমপুর উচ্চ বিদ্যালয়ে এবছর মোট ৪০৬ জন পরীক্ষার্থী জেএসসি পরীক্ষায় অংশ গ্রহণ করছে। প্রতি শিক্ষার্থীর কাছ থেকে জেএসসি পরীক্ষার এডমিট কার্ডের ফি বাবত আদায় করা হচ্ছে ১০০ টাকা করে। মডেল টেষ্ট পরীক্ষার পূর্বে স্কুলের শিক্ষক মশিউর রহমান টিপু শিক্ষার্থীদের কোচিং করিয়েছিলেন। কোচিংয়ে সকল শিক্ষার্থী অংশ গ্রহণ না করেও তাদের সকলের কাছ থেকে কোচিং ফি বাবত আদায় করা হচ্ছে ২৫০-৩০০ টাকা করে। মন্ত্রণালয়ের নীতিমালা না মেনে কোচিং পড়িয়ে তাদের কাছ থেকে বাধ্যতামূলক আদায় করা হচ্ছে কোচিং ফি।
স্কুলের এক শিক্ষার্থী জানান, এডমিট কার্ডের টাকা না দেওয়ায় শিক্ষকরা গালমন্দ করেছেন। টাকা না দিলে অন্য স্কুলে চলে যেতে বলেছেন। কয়েকজন অভিভাবক অভিযোগ করে বলেন, স্কুল থেকে শিক্ষার্থীদের বলা হচ্ছে কোচিং ও এডমিট কার্ডের ফি নিয়ে আসার জন্য। যারা ফি দিতে পারছে না তাদের সাথে অকট্য ভাষা ব্যবহার করা হচ্ছে।
বিষয়টি নিয়ে স্কুলের শিক্ষক মশিউর রহমান টিপু বলেন, ছাত্রদের আবেদনে বিশেষ ক্লাস করা হয়েছিল। কোন টাকা আদায় করা হয়নি।
বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মিন্ময় কান্তি ভট্টাচার্জ বলেন, স্কুলের মডেল টেস্ট ফি বাবত টাকা আদায় করা হয়েছে। এডমিট কার্ডের কোন ফি আদায় করা হয়নি।
এ ব্যাপারে রাজনগর উপজেলা মাধ্যমিক শিক্ষা অফিসার মৌলুদুর রহমান জানান, বিষয়টি আমার জানা নেই, জেনে ব্যবস্থা নেব।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”

মন্তব্য করুন