‘সুন্দরী’কে ঘিরে ছিলো দর্শনার্থীদের ভিড়

অক্টোবর ১০, ২০১৮, ১:১৭ অপরাহ্ণ এই সংবাদটি ২৪১ বার পঠিত

এমদাদুল হক॥ মৌলভীবাজারে বিভিন্ন প্রজাতির কবুতর নিয়ে দিনব্যাপী সৌখিন কবুতর প্রদর্শনী সম্পন্ন হয়েছে। সৌখিন কবুতর প্রদর্শনীতে প্রায় ৬০ প্রজাতির কবুতরের মধ্যে ‘সুন্দরী’ নামক একটি প্রজাতি ছিলো। সাদা, কালো আর ছাঁই রংয়ের সংমিশ্রনে সুন্দরী কবুতরের রূপ-লাবণ্য দেখতে সবচেয়ে বেশি ভিড় ছিলো প্রদর্শনীতে আসা দর্শনার্থীদের।

৯ অক্টোবর মঙ্গলবার সকাল সাড়ে ৯টা থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত জেলা শহরের জাহাঙ্গীর কমিউনিটি সেন্টারে উৎসবমুখর পরিবেশে এই আয়োজন সম্পন্ন হয়। কয়েকজন দর্শনার্থী এই প্রতিবেদককে বলেন, সুন্দরী প্রজাতির কবুতরটির নামের সাথে তার খুবই মিল রয়েছে। কারণ সুন্দরীর মুভমেন্ট, ডানা মেলা, হাঁটা, নড়াচড়া এবং চাহনি, সবকিছুই অন্যান্য কবুতরের চেয়ে আকর্ষণীয়।

মৌলভীবাজারের সৌখিন খামারিবৃন্দের উদ্যোগে বর্ণিল আয়োজনে এই ব্যতিক্রম প্রদর্শনী শুরু হয়। এবারের কবুতর প্রদর্শনী উদ্বোধন করেন মৌলভীবাজার জেলা প্রশাসক মো. তোফায়েল ইসলাম। সৌখিন কবুতর প্রদর্শনীর অন্যতম আয়োজক রফিকুল ইসলাম রেজা জানান, এবারে ৩০ জন খামারী প্রদর্শনীতে অংশগ্রহণ করেছেন। তিনি আরো জানান, ২০১৭ সালে ১ম আয়োজনে অংশ নিয়েছিলো মাত্র ৮জন খামারী।

এবারের সৌখিন কবুতর প্রদর্শনীতে ৬০ প্রজাতির কবুতর প্রদর্শন করা হয়েছে। সবগুলোই ছিলো বিদেশী প্রজাতির কবুতর। যার মধ্যে জেকোবিন, সুন্দরী, ইন্ডিয়ান কালদম, ইউরোপিয়ান ট্রিপলার, রিভার সুইং পোটার, ইংলিশ পোটার, ফ্রেঞ্চ মনডেইন ও আমেরিকান লঙ্কা প্রজতির কবুতর ছিলো অন্যতম। আয়োজকরা জানান, দেশী প্রজাতির চাইতে বিদেশী প্রজাতির কবুতর পালনে বেশি লাভবান হওয়া যায়, তাই প্রদর্শনীতে কোন প্রকার দেশীয় প্রজাতির কবুতর প্রদর্শন করা হয়নি।

দর্শনার্থীদেরকে কবুতর সম্বন্ধীয় বিভিন্ন তথ্য সরবরাহের জন্য প্রদর্শনীতে একটি তথ্যকেন্দ্রও স্থাপন করা হয়। জাকেরা আক্তার নামে এক মহিলা কবুতর প্রদর্শনী দেখতে এসেছিলেন। তিনি বলেন, এমন সৌখিন প্রদর্শনী আমাদেরকে কবুতর পালনে উৎসাহ যোগায়। আমরা এমন আয়োজন বছরে কমপক্ষে ২বার দেখতে চাই।

হাসান আহমেদ নামে এক স্কুল ছাত্র বলেন, কবুতর প্রদর্শনীতে এসে বেশ কিছু কবুতর দেখলাম, তাদের নাম জানলাম, অনেক নতুন অভিজ্ঞতা হলো।

আয়োজকদের সাথে কথা বলে যায়, কবুতর পালনের নেশা থেকে পেশায় রূপ নিয়েছে বেশিরভাগ খামারির। যাদের মধ্যে অধিকাংশই তরুন এবং ছাত্র। এছাড়াও বিভিন্ন পেশার পাশাপাশি বাণিজ্যিকভাবে কবুতর পালন করছেন অনেকেই। আয়োজক রাজু হানিফ, ডা. সোহেল রানা, ফেরদৌস আহমেদ রানা, সুমন খান ও রফিকুল ইসলাম রেজা মৌলভীবাজার শহরের অন্যতম কবুতর খামারি।

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”