বড়লেখায় সাবেক চেয়ারম্যানের জানাজায় শোকার্ত মানুষের ঢল

আগস্ট ১৫, ২০১৩, ১২:০০ পূর্বাহ্ণ এই সংবাদটি ৪ বার পঠিত

বড়লেখা উপজেলার দক্ষিণভাগ (দঃ) ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান বিশিষ্ট সমাজ সেবক ও আওয়ামীলীগ নেতা গিয়াস উদ্দিন আহমেদ’র জানাজায় হাজার হাজার শোকার্ত মানুষের ঢল নামে। ১৪ আগষ্ট বুধবার বিকেল আড়াইটায় দক্ষিণভাগ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে তাঁর এ যাবত কালের রেকর্ড সংখ্যক মানুষের অংশগ্রহনে জানাজা অনুষ্টিত হয়। স্কুল মাঠে স্থান সংকুলান না হওয়ায় মেইন রোডের উপর ও বাজার প্রাঙ্গনে জানাজার জামায়াত সম্প্রসারিত হয়। জানাজায় ইমামতি করেন মরহুমের ভাগ্নে মাওলানা ছয়দুল হাসান। এলাকার দলমত নির্বিশেষে সর্বস্থরের মানুষের অতি প্রিয় এ জনপ্রতিনিধির মৃত্যূতে সর্বত্র শোকের ছায়া নেমে আসে। তাঁর মৃত্যূতে দক্ষিণ ভাগ বাজার ব্যবসায়ী সমিতি দুইঘন্টা দোকানপাঠ বন্ধ করে এবং পরিবহন শ্রমিক ও মালিক সমিতি শোক পালন করে। গত মঙ্গলবার ঢাকার একটি প্রাইভেট হাসপাতালে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে জনপ্রিয় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন আহমেদ ইন্তেকাল করেন। জানাজা পূর্ব সমাবেশে মরহুম গিয়াস উদ্দিন আহমেদ’র বর্ণাঢ্য কর্মময় জীবনের ওপর স্মৃতিচারন করেন সাবেক প্রতিমন্ত্রী অ্যাড. এবাদুর রহমান চৌধুরী, কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও সংসদ সদস্য সুলতান মোহাম্মদ সনসুর, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক নেছার আহমদ, সৈয়দ মহসীন আলী এমপি, শাহাব উদ্দিন এমপি, সাবেক সংসদ সদস্য ও ঠিকানা গ্রুফের চেয়ারম্যান এমএম শাহীন, বড়লেখা উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা সিরাজ উদ্দিন, জুড়ী উপজেলা চেয়ারম্যান এমএ মুমীত আশুক, বড়লেখা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান এমাদুল ইসলাম, ইউপি চেয়ারম্যান আজির উদ্দিন, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান জাহিদুল ইসলাম মামুন, পাথারিয়া গাংকুল ফাজিল মাদ্রাসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মাওলানা হাফিজুর রহমান, কেন্দ্রীয় জামায়াত নেতা মাওলানা আমিনুল ইসলাম, আ’লীগ নেতা আজির উদ্দিন, বদরুল হোসেন, যুবলীগ নেতা রফিকুল ইসলাম সুন্দর। কৃতজ্ঞতা প্রকাশ ঃ এদিকে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন আহমেদের মৃত্যূতে তাঁর জানাজায় বিভিন্ন রাজনৈনিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক নেতৃবৃন্দ, জনপ্রতিনিধি, প্রশাসনিক কর্মকর্তা, শিক্ষক, সাংবাদিক, ব্যবসায়ীবৃন্দ অংশগ্রহন করে রুহের মাগফেরাত কামনা ও শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করায় মরহুমের পরিবারের পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন ছেলে মহিউদ্দিন আহমদ আদনান, শাফি উদ্দিন আহমদ দাইয়ান ও ভাতিজা শাহাব উদ্দিন সাবু।
বড়লেখা উপজেলার দক্ষিণভাগ (দঃ) ইউনিয়নের সাবেক চেয়ারম্যান বিশিষ্ট সমাজ সেবক ও আওয়ামীলীগ নেতা গিয়াস উদ্দিন আহমেদ’র জানাজায় হাজার হাজার শোকার্ত মানুষের ঢল নামে। ১৪ আগষ্ট বুধবার বিকেল আড়াইটায় দক্ষিণভাগ সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয় প্রাঙ্গনে তাঁর এ যাবত কালের রেকর্ড সংখ্যক মানুষের অংশগ্রহনে জানাজা অনুষ্টিত হয়। স্কুল মাঠে স্থান সংকুলান না হওয়ায় মেইন রোডের উপর ও বাজার প্রাঙ্গনে জানাজার জামায়াত সম্প্রসারিত হয়। জানাজায় ইমামতি করেন মরহুমের ভাগ্নে মাওলানা ছয়দুল হাসান। এলাকার দলমত নির্বিশেষে সর্বস্থরের মানুষের অতি প্রিয় এ জনপ্রতিনিধির মৃত্যূতে সর্বত্র শোকের ছায়া নেমে আসে। তাঁর মৃত্যূতে দক্ষিণ ভাগ বাজার ব্যবসায়ী সমিতি দুইঘন্টা দোকানপাঠ বন্ধ করে এবং পরিবহন শ্রমিক ও মালিক সমিতি শোক পালন করে। গত মঙ্গলবার ঢাকার একটি প্রাইভেট হাসপাতালে হৃদযন্ত্রের ক্রিয়া বন্ধ হয়ে জনপ্রিয় সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন আহমেদ ইন্তেকাল করেন। জানাজা পূর্ব সমাবেশে মরহুম গিয়াস উদ্দিন আহমেদ’র বর্ণাঢ্য কর্মময় জীবনের ওপর স্মৃতিচারন করেন সাবেক প্রতিমন্ত্রী অ্যাড. এবাদুর রহমান চৌধুরী, কেন্দ্রীয় আওয়ামীলীগের সাবেক সাংগঠনিক সম্পাদক ও সংসদ সদস্য সুলতান মোহাম্মদ সনসুর, জেলা আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক নেছার আহমদ, সৈয়দ মহসীন আলী এমপি, শাহাব উদ্দিন এমপি, সাবেক সংসদ সদস্য ও ঠিকানা গ্রুফের চেয়ারম্যান এমএম শাহীন, বড়লেখা উপজেলা চেয়ারম্যান মুক্তিযোদ্ধা সিরাজ উদ্দিন, জুড়ী উপজেলা চেয়ারম্যান এমএ মুমীত আশুক, বড়লেখা উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান এমাদুল ইসলাম, ইউপি চেয়ারম্যান আজির উদ্দিন, সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান জাহিদুল ইসলাম মামুন, পাথারিয়া গাংকুল ফাজিল মাদ্রাসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ মাওলানা হাফিজুর রহমান, কেন্দ্রীয় জামায়াত নেতা মাওলানা আমিনুল ইসলাম, আ’লীগ নেতা আজির উদ্দিন, বদরুল হোসেন, যুবলীগ নেতা রফিকুল ইসলাম সুন্দর। কৃতজ্ঞতা প্রকাশ ঃ এদিকে সাবেক ইউপি চেয়ারম্যান গিয়াস উদ্দিন আহমেদের মৃত্যূতে তাঁর জানাজায় বিভিন্ন রাজনৈনিক, সামাজিক, সাংস্কৃতিক নেতৃবৃন্দ, জনপ্রতিনিধি, প্রশাসনিক কর্মকর্তা, শিক্ষক, সাংবাদিক, ব্যবসায়ীবৃন্দ অংশগ্রহন করে রুহের মাগফেরাত কামনা ও শোক সন্তপ্ত পরিবারের সদস্যদের প্রতি সমবেদনা জ্ঞাপন করায় মরহুমের পরিবারের পক্ষ থেকে কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেছেন ছেলে মহিউদ্দিন আহমদ আদনান, শাফি উদ্দিন আহমদ দাইয়ান ও ভাতিজা শাহাব উদ্দিন সাবু। কুলাউড়া অফিস॥

সংবাদটি শেয়ার করতে নিচের “আপনার প্রিয় শেয়ার বাটনটিতে ক্লিক করুন”

মন্তব্য করুন